৩০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

December 14, 2019, 11:11 am

কেউ কর্মী হতে চায়না, সবাই নেতা হতে চায়- রেলমন্ত্রী

পঞ্চগড় প্রতিনিধিঃ রেলপথ মন্ত্রী ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট নূরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, তিনি বলেন, নীতি, আদর্শ আর লক্ষ্য নিয়ে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দলকে সুসংগঠিত করে ক্ষুধা, দারিদ্র, সন্ত্রাস, দুর্নীতিমুক্ত আত্মনিভর্রশীল মর্যাদাপূর্ণ জাতি হিসেবে পৃথিবীর বুকে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে গেছে তৃণমূলের জনগণই আওয়ামীলীগের শক্তি, এই শক্তিকে দুর্বল করে দিতে পারিনা। তৃণমূল পর্যায় থেকে দলকে শক্তিশালী হিসেবে গড়ে তুলতে এই সম্মেলন। ক্ষমতায় থাকলে অনেকে দলে ভিড়ে যায়। তখন দলের নিবেদিতপ্রাণ কর্মীরা অসহায় হয়ে পড়ে।
মন্ত্রী মঙ্গলবার দুপুরে পঞ্চগড়ের বোদা মহিলা কলেজ মাঠে আয়োজিত উপজেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথিরি বক্তব্যে এসব কথা বলেন।এর আগে মন্ত্রী জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করে সম্মেলনে সূচনা করেন।

সম্মেলনে সভাপতি পদে এড. ওয়াহিদুজ্জামান সুজা ও সাধারণ সম্পাদক পদে অধ্যাপক ফারুক আলম টবি পুনারায় নির্বাচিত হয়েছেন। এর আগে দুপুরে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন রেলপথ মন্ত্রী ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট. নূরুল ইসলাম সুজন। সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশনে কাউন্সিলরগণের সমর্থনে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট নূরুল ইসলাম সুজন সন্ধ্যায় নির্বাচিতদের নাম ঘোষণা করেন।
মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ এখন বিশ্বের নিকট একটি রোল মডেল।তিনি বলেন, সবাই নেতা হতে চায়, কেউ কর্মী হতে চায় না। দলীয় নেতাকর্মীদের জনগণের পাশে থেকে সরকারের উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে প্রহরীর মত কাজ করতে হবে। নেতাকর্মীদেরকে মানুষের সেবা ও কল্যাণের জন্য কাজ করতে হবে। পদ কোন পদবী নয়, এটা হলো দায়িত্ব। অনেকে পদবী পেতে আগ্রহী কিন্তু পদের দায়িত্ব নিতে আগ্রহী নয়। বঙ্গবন্ধুর কর্মী দাবি করলে দায়িত্বও আসবে। আমরা অনেক সময় দায়িত্বটা অনুভব করি না। তিনি দেশ, সমাজ, প্রতিবেশি ও সাধারণ মানুষের বিপদে আপদে কাছে থেকে সহযোগিতার জন্য নেতাকর্মীদের প্রতি আহবান জানান।তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন সুখী সমৃদ্ধশালী স্থিতিশীল ও অসাম্প্রদায়িক দেশ হিসেবে যখন সামনের দিকে অগ্রসর হচ্ছিল ঠিক তখনই সাম্প্রদায়িক শক্তি ৭৫ এর ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যা করে দেশকে অস্থিতিশীল ও সাম্প্রদায়িকতার দিকে নিয়ে যায়। তিনি বঙ্গবন্ধুর লালিত স্বপ্ন ক্ষুধামুক্ত, দারিদ্রমুক্ত আন্মনিভর্রশীল মর্যাদাসম্পন্ন একটি দেশ গড়ে তুলতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহবান জানান। বিএনপি-জামায়াত জোট ক্ষমতায় এসে পাকিস্তানী ধ্যান ধারণায় বাংলাদেশকে একটি সন্ত্রাসের জনপদে পরিণত করে। উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এড. ওয়াহিদুজ্জামান সুজার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার সাদাত সম্রাট। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ফারুক আলম টবি সম্মেলনে সাংগঠনিক রিপোর্ট পেশ করেন।
সম্মেলনের শুরতেই শোক প্রস্তাব উত্থাপন করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মিজানুর রহমান। নিহতের স্মরণে এক মিনিটি দাঁড়িয়ে নীরবতা পালন করা হয়। সম্মেলনে প্রধান বক্তা হিসেবে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার সাদাত সম্রাট।এছাড়া ও বিশেষ অতিথি হিসেবে কেন্দ্রীয় কৃষক লীগের সহসভাপতি আব্দুল লতিফ তারিন, জেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি আব্বাস আলী, আবু তোয়াবুর রহমান সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন। প্রায় ৭ বছর পর এই উপজেলায় আওয়ামীলীগের সম্মেলন । প্রায়৭ বছর পর এই উপজলোয় আওয়ামী লীগরে ত্র-িবার্ষকি সম্মলেন অনুষ্ঠিত হলো।ন।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর