নেতাকর্মীদের ভালোবাসায় সিক্ত পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের ভালোবাসায় সিক্ত হলেন সিলেট-১ আসন (সিলেট সিটি-সদর) এমপি, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের জন্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পেয়ে তিনি মঙ্গলবার দুপুর ২ টায় ঢাকা থেকে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছালে তাঁকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান নেতাকর্মী ও দলীয় সমর্থকেরা।

এ সময় বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক ও সিলেট জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, সহ-সভাপতি ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, সিসিক মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিক, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সৈয়দ এফতার হোসেন পিয়ার, দফতর সম্পাদক আখতারুজ্জামান চৌধুরী জগলু, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আজাদুর রহমান আজাদ, বিধান কুমার সাহা জেলা যুবলীগের সভাপতি ভিপি শামীম, সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ, মহানগর যুবলীগের সভাপতি আলম খান মুক্তি, সাধারণ সম্পাদক মুশফিক জায়গিরদার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুবেদুর রহমান মুন্না, সিলেট জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হেলেন আহমেদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মো. আফসার আজিজ ও সাধারণ সম্পাদক জালাল উদ্দিন আহমদ কয়েস, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাহেল সিরাজ, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি করা হয়েছে কিশওয়ার জাহান সৌরভ, সাধারণ সম্পাদক মো. নাঈম আহমদ, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নিজাম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক হিরণ মিয়া প্রমুখ। সিলেট সদর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানবৃন্দ, আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের দায়িত্বশীল ছাড়াও অসংখ্য দলীয় নেতাকর্মী ও সমর্থক উপস্থিত ছিলেন।

আরো পড়ুন  ভোটকেন্দ্রে না যেতে চট্টগ্রামে জামায়াতের লিফলেট বিতরণ

বিমান বন্দর হতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হযরত শাহজালাল ( র.) ও শাহপরান ( র.) মাজারে যান। সেখানে মাজার জিয়ারত ও দোয়া প্রার্থনা করেন। এরপর পররাষ্ট্রমন্ত্রী তাঁর পিতা-মাতার কবর জিয়ারত করেন।

গণমাধ্যমকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি সিলেটবাসীকে ধন্যবাদ কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বলেন, সিলেটবাসীর আস্থা ,বিশ্বাস ও ভালবাসা ছিল বলেই আমি আবারও নৌকার মনোনয়ন পেয়েছি। আমি আশারাখি আগামী নির্বাচনে জয়ী হয়ে সিলেটের চলমান উন্নয়ন আরো বেগবান করব।

তিনি আরো বলেন, শেখ হাসিনার সরকার থাকলে দেশ স্থিতিশীল থাকে, যা জাতির ভবিষ্যতের জন্য খুবই দরকার। আমরা শান্তি, স্থিতিশীল দেশ চাই। শেখ হাসিনা শান্তির প্রতিভু। বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলাকে একটি সমৃদ্ধশালী দেশ হিসেবে গড়তে চাই যেখানে সবার জন্য থাকবে অন্ন,বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসার নিশ্চয়তা। সিলেটকে আমি একটি আলোকিত-উন্নত সিলেট গড়তে চাই। আমাদের শক্তি হচ্ছে জনগণ। আগামী নির্বাচনে জনগন উৎসবমুখর পরিবেশে দলে দলে ভোট দিতে যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *