শীতে ওজন কমাবে এই ৩ পানীয়

শীত মানে লোভনীয় সব খাবারের আয়োজন। বিশেষ করে পিঠাপুলি। যার বেশিরভাগই আবার মিষ্টি স্বাদের। এসব খাবার এতটাই সুস্বাদু যে লোভ সামলে রাখা দায়। যে কারণে খাওয়া তো হয়ই, সেইসঙ্গে বাড়ে ওজনও। আবার শীতের সময়ে একটু অলসতা এসে ভর করে। যে কারণে খুব বেশি ক্যালোরিও ঝরানো সম্ভব হয়। সবকিছু মিলিয়ে আপনার ওজন কমানোর যাত্রা গতিহীন হয়ে যায় এই সময়ে। আপনি যদি চান শীতের সময়েও ওজন না বাড়ুক, তাহলে পান করতে হবে কিছু পানীয়। চলুন জেনে নেওয়া যাক-

১. লেবু-পুদিনা চা
লেবুর সাইট্রাস গুণ, পুদিনা উপকারিতা এবং চায়ের উষ্ণতা মিলে তৈরি হবে শীতে ওজন কমানোর উপযুক্ত উপায়। ভিটামিন সি সমৃদ্ধ লেবুর রস হজম এবং ডিটক্সে সাহায্য করে, পুদিনা পেট এবং গলা প্রশমিত করে যা ক্ষুধা নিবারণ করতে সাহায্য করতে পারে।

লেবু ও পুদিনার চা তৈরি করার জন্য চায়ের সঙ্গে লেবুর রস ও পুদিনা পাতা যোগ করলেই হবে। বাড়তি স্বাদ চাইলে এক চামচ মধু যোগ করুন। তবে ভুলেও চিনি মেশাবেন না। এই পানীয় পান করলে তা আপনার ওজন নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করবে।

২. বিটরুটের রস
বিটরুটের রস শুধু পুষ্টিগুণে সমৃদ্ধ নয়, এই কম ক্যালোরি সমৃদ্ধ পানীয় আপনাকে শীতের সময়ে ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করবে। অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, ভিটামিন এবং খনিজ সমৃদ্ধ বিটরুট লিভারের কার্যকারিতা এবং শরীরকে ডিটক্সিফাই করার ক্ষমতার জন্য পরিচিত। এটি শরীরের প্রাকৃতিক চর্বি পোড়ানোর প্রক্রিয়ায় সাহায্য করে। বিটরুটে থাকা ফাইবার দীর্ঘ সময় আপনার পেট ভরিয়ে রাখে।

আরো পড়ুন  দাঁতে পাথর জমলে যা করবেন

এক কাপ বিটরুটের রস তৈরি করার জন্য একটি আস্ত বিটরুট গ্রেট করুন এবং পরিমাণমতো পানি দিয়ে ব্লেন্ড করুন। আপনি চাইলে জুসারও ব্যবহার করতে পারেন। স্বাদ বাড়াতে লেবুর রস এবং এক চিমটি বিট লবণ যোগ করুন।

৩. দারুচিনি চা

দারুচিনি চা প্রশান্তিদায়ক এবং সুগন্ধযুক্ত পানীয়। এই চা অনেক স্বাস্থ্য সুবিধা দেয়, তার মধ্যে একটি হলো ওজন নিয়ন্ত্রণ। দারুচিনির শক্তিশালী গন্ধ রয়েছে যা সবাই পছন্দ করে। এক কাপ গরম চায়ের দারুচিনি যোগ হলে তা আরও দারুণ কিছু হতে পারে। দারুচিনি রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে এবং এর স্বাদ চিনি খাওয়া কমাতে সাহায্য করে।

রাতে বা ভোরে এক কাপ উষ্ণ দারুচিনি চা মেটাবলিজম বাড়ায় যা চর্বি পোড়ানোর প্রক্রিয়ায় সহায়তা করে। দারুচিনি চা তৈরি করার জন্য ১টি বা ২টি দারুচিনির টুকরা গরম পানি সেদ্ধ করুন। ৫-৭ মিনিট ফোটানো হলে কাপে ঢেলে নিন। খাবারের আগে এই চা খেলে তা হজমেও সাহায্য করতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *