আন্তর্জাতিক দৃষ্টি আকর্ষণ করতেই ট্রেনে আগুন

যারা ট্রেনে আগুন দিয়েছে তারা মানুষ নয় পশু বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ম কমিশনার (অপারেশন) বিপ্লব কুমার সরকার।

তিনি বলেছেন, দু-একটি বাস পুড়িয়ে হয়তো আন্তর্জাতিক মহলের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে পারছে না আন্দোলনকারীরা। তারা মনে করছে, এমন কোনো নৃশংস-পৈশাচিক ঘটনা ঘটাবে যাতে করে আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের দৃষ্টি আকর্ষণ করা যায়।

বুধবার (২০ ডিসেম্বর) ডিএমপি সদর দপ্তরে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

বিপ্লব কুমার সরকার বলেন, আসন্ন জাতীয় নির্বাচনকে বানচাল করার জন্য যে গোষ্ঠী কাজ করছে তারা ট্রেনে আগুন দেওয়ার ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকতে পারে৷ দু-একটি বাস পুড়িয়ে হয়তো তারা আন্তর্জাতিক মহলের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে পারছে না। তারা হয়তো মনে করছে এমন কোনো নৃশংস-পৈশাচিক ঘটনা ঘটাবে যাতে করে আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের দৃষ্টি আকর্ষণ করবে, তবে এটি তাদের বিকৃত মস্তিষ্কের বহিঃপ্রকাশ।

ট্রেনে আগুন দিয়ে নিষ্পাপ শিশুসহ চারজন মৃত্যুর ঘটনা হত্যাকাণ্ড উল্লেখ করে তিনি বলেন, এর চাইতে নির্মম ও বর্বরোচিত হত্যাকাণ্ড হতে পারে কি না বা অমানবিক কাজ হতে পারে কি না আমার জানা নেই। যারা এটি করেছে তারা মানুষ নয়, পশু।

ডিএমপির এ যুগ্ম কমিশনার আরও বলেন, আগুন দিয়ে চারটি তাজা প্রাণকে ছিনিয়ে নেওয়া হয়েছে। এটি শতভাগ নাশকতা। যেমনটা আমরা দেখেছি ২০১৩, ১৪ ও ১৫ সালে। যারা ট্রেনে আগুন দিয়েছে তারা মানুষের মতো দেখতে হলেও মানবিকতার দিক থেকে মনুষ্যত্বের দিক থেকে তারা পশু। এ পশুদের আইনের আওতায় আনার জন্য যত ধরনের কর্মকাণ্ড গ্রহণ করা প্রয়োজন ডিএমপি ইতোমধ্যে সে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।

আরো পড়ুন  বড়দিনকে ঘিরে গির্জায় নিরাপত্তা বাড়ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

ট্রেনে আগুন দিয়ে হত্যার ঘটনায় মামলা হয়েছে রেলওয়ে থানার অধীনে। তবে একসময় আইনগত প্রক্রিয়ার মাধ্যমে মামলাটি ডিএমপিতে নিয়ে আসা হবে, যোগ করেন তিনি।

অতীতে যারা আগুন দিয়েছে তারাই এ ঘটনা ঘটিয়েছে উল্লেখ করে বিপ্লব কুমার সরকার বলেন, চিহ্নিত গোষ্ঠী ট্রেনে আগুন দিয়েছে। তবে আমরা ওপেন মাইন্ড নিয়ে তদন্ত কার্যক্রম পরিচালনা করছি। ওমুকই ঘটিয়েছে এমনটা নাও হতে পারে।

তিনি বলেন, সর্বোচ্চ কোনো মহলের নির্দেশনায় এ ঘটনা ঘটিয়েছে। সেটি দেশের ভেতরে কিংবা দেশের বাইরে থেকে অন্য কেউ ইঙ্গিত দিতেও পারে। অতীতে যারা এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের ব্যাপারেও দৃষ্টি রয়েছে। তারা কিছুদিন আগে থেকে বাসে আগুন ও গাজীপুরে ট্রেন লাইন কেটে ফেলে। এসব ঘটনা বিচ্ছিন্ন ভাবার কোনো সুযোগ নেই।

বিপ্লব সরকার আরও বলেন, ডিএমপি দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে চায়, এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়ে পার পাওয়া যাবে না। সে লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছি। এ কাজে জড়িত যত হাই লেভেলের হোক আর যত লো প্রোফাইলের হোক, আমরা কাউকেই ছাড়বো না।

একটি গোষ্ঠী অতীতে নাশকতা করেছিল, বর্তমানেও করছে এবং ভবিষ্যতেও নাশকতা করতে পারে; সেই গোষ্ঠীটির কর্মকাণ্ড মনিটরিং করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *