সিলেটের টেস্ট উইকেট নিয়ে যা বললেন ফিলিপস

ক্যারিয়ারে প্রথম টেস্ট উইকেটের স্বাদ পেয়েছেন নিউজিল্যান্ডের ব্যাটিং অলরাউন্ডার গ্লেন ফিলিপস। অবশ্য সেটাই শেষ নয়, সিলেটে চলমান টেস্টের প্রথম দিনে আজ (মঙ্গলবার) বাংলাদেশের বিপক্ষে ১৬ ওভার হাত ঘুরিয়েছেন তিনি। বিপরীতে ৫৩ রান খরচায় ৪ উইকেট নিয়েছেন। দিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসে নিজের স্বপ্ন পূরণ হয়েছে বলে জানিয়েছেন কিউইদের হয়ে ইনিংসের এই সেরা বোলার।

২৬ বছর বয়সী অলরাউন্ডার ফিলিপস বলেন, ‘আমি বহুদিন ধরে প্রথম টেস্ট উইকেট পাওয়ার স্বপ্ন দেখেছি। কিন্তু কখনও ভাবিনি এভাবে উইকেটটা পাবো। আপনারা দেখবেন লেগ স্পিনাররা অনেক সময় খুব ভালো বল করার পর একটা লোপ্পা ফুলটস দিয়ে দেয়। এরপর ব্যাটারদের চোখ বড় হয়ে যায় আর তারা ওটা মারতে গিয়ে আউট হয়।’

অবশ্য আজকের প্রথম উইকেটটাতে ফিলিপসের চেয়ে বাংলাদেশ অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্তরই অবদান বেশি। এজন্য নিজেকে ভাগ্যবান বলে দাবি করেছেন ফিলিপস, ‘আমি সবসময় ওরকম একটা উইকেট পেতে চাইতাম, কিন্তু এটাকে প্রথম টেস্ট উইকেট হিসেবে না। হয়তো আমরা দ্বিতীয় উইকেটটির সঙ্গে অদল-বদল করে নিতে পারি! আমিও এরকম ফুল টসে আউট হয়েছি, সব ব্যাটারই হয়। আমি শুধু কিছুটা ভাগ্যবান ছিলাম এখানে।’

টেস্টের প্রথম দিনে বোলারদের ওপর বাংলাদেশি ব্যাটারদের চড়াও হওয়াকে সুযোগ হিসেবে নিয়েছেন ফিলিপস, ‘ওরা আমাদের চড়াও হচ্ছিল শুরুতে। এজাজকে (প্যাটেল) বেশ চাপে ফেলে দিয়েছিল। আমার মনে হয় এটা সুযোগ করে দিয়েছে উইকেট নেওয়ার জন্য। উপমহাদেশের উইকেটে আমরা যেমন দেখি, চড়াও হলে বোলারদের লাইন-লেংথ ঠিক থাকে না। বাংলাদেশের ছেলেরা সেটা ভালোই করেছিল, কিন্তু তাতে কিছু উইকেট আমরা পেয়েছি।’

আরো পড়ুন  বিপিএলের উইকেট নিয়ে মুখ খুললেন সাকিব

একইসঙ্গে বাংলাদেশের বেশি বাঁ-হাতি ব্যাটার থাকাকে নিজের ভালো সুযোগ এবং টিম সাউদির প্রশংসা করে এই নিউজিল্যান্ড ক্রিকেটার বলেন, ‘টেস্ট ম্যাচের মতো পর্যায়ে বল করতে পারা আমার জন্য স্বপ্নের মতো ব্যাপার। বাংলাদেশের একাদশে বাঁ-হাতি ব্যাটার বেশি থাকায় সুযোগটা এসেছে। আমার মনে হয় সাউদি যেভাবে বোলার বদলেছে আজকে, এটা ছিল দারুণ। সব মিলিয়ে ছেলেরা দারুণ করেছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *